পূজামণ্ডপে কাজলের চোখে জল

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কাজলের একটি ভিডিও ভাইরাল। পূজামণ্ডপে দুই প্রবীণকে জড়িয়ে হাউমাউ করে কাঁদছেন এই বলিউড তারকা। তবে এ কান্না আনন্দের। বিশেষ দিনে প্রিয়জনকে কাছে পাওয়ার, বহুদিন পর কাছের মানুষের সঙ্গে দেখা হওয়ার আনন্দাশ্রু।
উত্তর মুম্বাইয়ের হীরাবতী ব্যাঙ্কোয়েট হলে পূজার আয়োজন করেন মুখার্জিরা। মহাধুমধাম করে হয় এ বাড়ির দুর্গাপূজা। প্রতিবছর সেখানে ভিড় করেন নামীদামি বলিউড তারকারা। আসে অগণিত সাধারণ মানুষ। আসবে নাই–বা কেন, এই বাড়ির কয়েকজন মেয়ে যে বলিউড তারকা—কাজল, রানী মুখার্জি, আছেন তনুজা, তানিশা। প্রতিবছর যত কাজই থাকুক, কাজল ও রানী দুই বোন চলে আসেন বাড়ির পূজায়।

গতকাল মঙ্গলবার যেমন কাজলকে পাওয়া গেল। শারদীয় উৎসবের আলোয় ঝলমল করছিলেন এই বলিউড অভিনেত্রী। পরনে গোলাপি রঙের শাড়ি। কপালে টিপ, খোঁপা করা চুল, গয়নায় একেবারে বাঙালি সাজে সেজেছিলেন অভিনেত্রী।

মুখার্জিবাড়ির পূজার অনেক কাজই নিজ হাতে করেছেন কাজল। প্রতিবছর ষষ্ঠী থেকে মণ্ডপে কাজলের মা তনুজাকেও দেখা যায়। তবে এবার তাঁকে এখনো দেখা যায়নি। জানা গেছে, বয়সের ভারে দুর্বল হয়ে পড়েছেন তিনি। তাই এখন আর আগের মতো সবকিছু পারেন না।
কাজলের চাচাতো বোন রানী মুখার্জিও উৎসবে শামিল হয়েছেন। রানীকে একটি বেবি পিংক শাড়িতে দেখা গিয়েছে পূজাবাড়িতে।

কাজল এমনিতেই সব সময় হাসিখুশি। পূজার সময় যেন আরও বেশি, সবার সঙ্গে গল্প করছেন। এই মধ্যেই দুই প্রবীণকে দেখে হঠাৎ কেঁদে ফেলেন তিনি। করোনার কারণে বহুদিন ধরে পরিবার, আত্মীয়স্বজনের যোগাযোগ বন্ধ। পূজায় অনেক দিন পর নিজের চাচাদের কাছে পেয়ে চোখের পানি ধরে রাখতে পারেননি কাজল।